মঙ্গলবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ || ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ || ১৩ই সফর, ১৪৪২ হিজরি

জমির বিরোধে সৎ মাকে পিটিয়ে হত্যা, আটক চার নারী

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি: গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে কুলসুম বেগম (৬৮) নামে এক বৃদ্ধা মাকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় শনিবার রাতে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে চার নারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তবে নিহতের সৎ ছেলেরা পলাতক রয়েছেন। এর আগে এদিন সকালে উপজেলার রাধাগঞ্জ ইউনিয়নের রাজিন্দারপাড় গ্রামে বৃদ্ধা মাকে পিটিয়ে হত্যা করে তার সৎ সন্তানরা। নিহত কুলসুম বেগম রাজিন্দারপাড় গ্রামের সবর আলী সিকদারের দ্বিতীয় স্ত্রী।

কুলসুম বেগমের ভাই স্কুলশিক্ষক কালাম ফকির জানান, সৎ ছেলেদের সঙ্গে জমি নিয়ে কুলসুম বেগমের বিরোধ চলে আসছিল। কুলসুম বেগমকে বাড়ি থেকে উচ্ছেদ করার জন্য শনিবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সৎ ছেলে আলাউদ্দিন সিকদার, স্ত্রী রোকেয়া বেগম, মেয়ে লিমা সিকদার ও ভাই রিপন সিকদার কুলসুম বেগমকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। এ সময় কুলসুম বেগমের নিজের দুই ছেলে ও ছেলের বউয়েরা তাকে উদ্ধারের জন্য এগিয়ে এলে হামলাকারীরা তাদেরও মারপিট করে।

ওই স্কুলশিক্ষক আরো বলেন, তার বোন কুলসুমকে উদ্ধার করে প্রথম কোটালীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, পরে গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল ও বিকালে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রাত ৮টার দিকে তিনি খুমেকে চিকিৎসাধীন মারা যান। আমরা এই নির্মম হত্যাকাণ্ডের বিচার চাই।

কোটালীপাড়া থানার ওসি শেখ লুৎফর রহমান বলেন, এ ঘটনায় শনিবার রাতেই কুলসুম বেগমের ছেলে স্বপন সিকদার বাদী হয়ে সাতজনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা করেন। রাতেই অভিযান চালিয়ে এ ঘটনায় জড়িত চার নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে। প্রাথমিকভাবে আমরা পিটিয়ে হত্যার প্রমাণ পেয়েছি।

 

লেখক পরিচিতি

Responses