বৃহস্পতিবার , ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত
শক্তিমান হত্যাঃ আসামিদের পক্ষে কোনো আইনজীবী মামলা পরিচালনা করবে না

শক্তিমান হত্যাঃ আসামিদের পক্ষে কোনো আইনজীবী মামলা পরিচালনা করবে না

মে ৩, ২০১৮

বিডি ল নিউজঃ আজ বৃহস্পতিবার (০৩ মে) দুপুরে জেলা বার অ্যাসোসিয়েশনের উদ্যোগে রাঙ্গামাটির নানিয়ারচর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট শক্তিমান চাকমাকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় খাগড়াছড়িতে প্রতিবাদ সভা করেছেন আইনজীবীরা। হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে তিনদিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছেন তারা। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে তিনদিন কালো ব্যাজ ধারণ, ৬ এপ্রিল মানববন্ধন ও প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান।

এতে বক্তব্য রাখেন সিনিয়র আইনজীবী নাছির উদ্দিন আহম্মেদ, জেলা বার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি অ্যাডভোকেট আশুতোষ চাকমা, সাধারণ সম্পাদক মো. আবুল হোসেন, মো. আবদুল মোমিন, নুরুল্লাহ হিরু প্রমুখ।
সভা থেকে অ্যাডভোকেট শক্তিমান চাকমাকে হত্যার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বক্তারা অবিলম্বে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় জড়িত ব্যক্তিদের গ্রেফতারের দাবি জানান।
জেলা বার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আশুতোষ চাকমা বলেন, এ ঘটনায় খাগড়াছড়িতে যদি মামলা হয় সে ক্ষেত্রে আসামিদের পক্ষে কোনো আইনজীবী মামলা পরিচালনা করবে না। রাঙ্গামাটিতেও কোনো আইনজীবী যাতে আসামিদের পক্ষে না থাকেন সে বিষয়টি রাঙ্গামাটি বার অ্যাসোসিয়েশনকে জানানো হয়েছে।
এদিন শক্তিমান চাকমাকে হত্যার ঘটনায় খাগড়াছড়িতে আদালতে সাক্ষী আর শুনানি ছাড়া অন্য কোনো মামলায় আইনজীবীরা অংশ নেননি।
বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে রাঙ্গামাটির নানিয়ারচর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (এমএন লারমা গ্রুপ) কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি অ্যাডভোকেট শক্তিমান চাকমাকে গুলি করে হত্যা করা হয়। এ সময় রূপম চাকমা নামে জনসংহতি সমিতির নানিয়ারচর থানা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক গুলিব্ধি হন। এ ঘটনার জন্য ইউপিডিএফ প্রসিত বিকাশ গ্রুপকে দায়ী করেছে সংগঠনটি। তবে হত্যার সাথে নিজেদের জড়িত থাকার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন ইউপিডিএফের প্রচার ও প্রকাশনা বিভাগের প্রধান নিরণ চাকমা।

আইনজীবিদের মধ্যে এই ঐক্যবদ্ধতা প্রথম দেখেছিলাম দিল্লী গণধর্ষণের ঘটনায়, তারপর এই মামলায় দেখা গেলো। দেখা যাক, মানবাধিকার সংস্থাগুলো কি উদ্যোগ নেয় এই ব্যাপারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*