রবিবার , ৮ ডিসেম্বর ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত
আলোচিত নুসরাত হত্যা মামলার রায় আগামীকাল

আলোচিত নুসরাত হত্যা মামলার রায় আগামীকাল

October 23, 2019

ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর আলোচিত মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা মামলার রায় ঘোষণা করা হবে আগামীকাল বৃহস্পতিবার (২৪ অক্টোবর)। গত ৩০ সেপ্টেম্বর ফেনীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. মামুনুর রশিদ রাষ্ট্র ও বাদীপক্ষের আইনজীবীদের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে রায়ের এই দিন ধার্য করেন।

এর আগে, গত বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) আসামিপক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষ করার মাধ্যমে উভয়পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষ হয়। পরে মামলার সার্বিক আইনি ব্যাখ্যা করার জন্য ২৯ সেপ্টেম্বর দিন ধার্য করেছিলেন আদালত।

গত ২৭ মার্চ অধ্যক্ষ সিরাজ উদ্দৌলার বিরুদ্ধে থানায় যৌন হয়রানির অভিযোগ দেয়ায় এবং তাকে গ্রেফতার করায় অধ্যক্ষের অনুসারীরা নুসরাতের উপর ক্ষিপ্ত হয়। একপর্যায়ে মামলা তুলে নিতে চাপ দিলে নুসরাত অপারগতা দেখায়। পরে ৬ এপ্রিল সকালে পরীক্ষা হল থেকে তাকে কৌশলে মাদ্রাসার ছাদে ডেকে নিয়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন দেয়া হয়।

এরপর গত ১০ এপ্রিল চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকা মেডিকেলে মৃত্যু বরণ করে নুসরাত। এ ঘটনায় নুসরাতের বড় ভাই মাহমুদুল হাসান নোমান বাদী হয়ে ৮ এপ্রিল সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। যার প্রেক্ষিতে ২৯ মে ১৬ জনকে অভিযুক্ত করে ৮০৮ পৃষ্ঠার অভিযোগপত্র আদালতে দাখিল করে পিবিআই।

চার্জশিটভুক্ত ১৬ আসামির মধ্যে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে ১২ জন। গত ১০ জুন ফেনীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল মামলাটি আমলে নিয়ে ২০ জুন অভিযুক্ত ১৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে।

এরপর মামলার ৮৭ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে চলছে এখন যুক্তিতর্ক। তাই দ্রুত সময়ের মধ্য মামলাটি শেষ পর্যায়ে থাকায় সৃষ্টি হয়েছে নজিরহীন দৃষ্টান্ত। পাশাপাশি প্রমাণ হবে যে, দেশের বিচার ব্যবস্থা স্বাধীন।

এদিকে আসামিপক্ষের আইনজীবীরা জানান, এতো অল্প সময়ে সাক্ষ্যগ্রহণ করে মামলা এ পর্যায়ে নিয়ে আনাটা উদ্দেশ্য প্রণোদিত। পাশাপাশি মামলার তদন্ত সংস্থা পিবিআই নিজেদের উদ্দেশ্য হাছিলে নির্যাতনের মুখে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে বাধ্য করেছেন। যা পরে আসামিদের পক্ষে নারাজি দেয়া হয়।

তারা অভিযোগ করে বলেন, মামলায় প্রত্যক্ষ কোন সাক্ষী হাজির করতে পারেনি পিবিআই। তাই মুখস্থ এ মামলায় কাউকে সাজা দিতে পারেন না আদালত।

বাদী পক্ষের আইনজীবীদের অভিযোগ, প্রথম থেকে মামলার বিচার কার্যক্রম প্রশ্নবিদ্ধসহ বিলম্বিত করার চেষ্টা চালাচ্ছে আসামিপক্ষ। তবে সকল সাক্ষ্য প্রমাণে আসামিদের ন্যক্কারজনক ঘটনা সৃষ্টির চিত্র ফুটে উঠেছে। তাই মামলায় ন্যায়বিচার পাবেন বলে আশা ব্যক্ত করেন বাদী পক্ষ।

এদিকে, দেশে এই প্রথম কোন হত্যা মামলা অডিওসহ ভিডিও গ্রাফিক্সের মাধ্যমে উপস্থাপন করা হয় আদালতে। চাঞ্চল্যকর এই নুসরাত হত্যা মামলাটি রয়েছে রায়ের পথে। তাই এখন ফেনীসহ দেশবাসীর দৃষ্টি রায় ঘোষণার দিকে।

About বিডি ল নিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.